জেনে নিন দুধের সাথে যে খাবার গুলো খেলেই খারাপ করবে শরীর !!

দুধ এবং ফল:

১. আমরা অনেকেই দুধের সঙ্গে কখনও কাঁচা ফল, তো কখনও ফল এবং দুধ মিশিয়ে মিল্ক শেক বানাই। এমনটা করা একেবারেই উচিত নয়। কারণ দুধের সঙ্গে ফলের চরিত্র একেবারেই মেলে না। তাই তো এমনটা দীর্ঘদিন ধরে করলে শরীর ধীরে ধীরে খারাপ হতে শুরু করে দেয়।

২. কলা, স্ট্রবেরি, লেবু এবং কমলা লেবু শরীর গরম করে দেয়, যেখানে দুধে উপস্থিত কুলিং এজেন্ট একেবারে উল্টো কাজটা করে।

৩. ফল এবং দুধ একসঙ্গে খেলে হজম সংক্রান্ত নানাবিধ সমস্যা দেখা দেয়। কারণ বিপরীত চরিত্র হওয়ার কারণে হজম যে প্রক্রিয়া তা ঠিক মতো কাজ করতে পারে না। ফলে বদ-হজম সহ নানাবিধ পেটের রোগ হওয়ার আশঙ্কা বৃদ্ধি পায়।

৪. ফল এবং দুধ একসঙ্গে খেলে নানা কারণে স্টমাকে টক্সিনের পরিমাণ খুব বেড়ে যায়। ফলে ঠান্ডা লাগা, সর্দি-কাশি এবং অ্যালার্জির মতো রোগে আক্রান্ত হওয়ার আশঙ্কা বৃদ্ধি পায়।

দুধ এবং মাংস:

১. চিকিৎসা বিজ্ঞান দুধকে একটি সম্পূর্ণ খাদ্য হিসেবে গণ্য করে থাকে। কারণ নানাবিধ পুষ্টি গুণে ভরপুর থাকে এই পানীয়টি। তাই তো দুধ এবং মাংস একসঙ্গে খেলে শরীরের পক্ষে পুষ্টিকর উপাদানে সমৃদ্ধ এই দুটি খাবারকে একই সময় হজম করা বেশ কষ্টকর হয়ে পরে। ফলে ঠিক মতো হজম না হওয়ার কারণে পেট খারাপ সহ নানাবিধ শরীরিক সমস্যা দেখা দেয়।

২. আমাদের শরীরের হজম ক্ষমতা এই দুটি খাবারকে কোনও মতেই কিন্তু একসঙ্গে ভাঙতে পারে না। কারণ দুটিই একই চরিত্রের খাবার।

৩. দীর্ঘদিন ধরে কেউ যদি দুধের সঙ্গে মাংস খেয়ে থাকেন তাহলে এক সময়ে গিয়ে তার হজম ক্ষমতা একেবারে নষ্ট হয়ে যায়।

৪. বাকি খাবারের মতো দুধ, ক্ষুদ্রান্তে পৌঁছানোর পর ভেঙে যায় না। ফলে হজমে সহায়ক জুসও সে সময় কাজ করে না। তাই তো দুধের সঙ্গে মাংস খেলে তা হজম না হয়ে ক্ষুদ্রান্তেই থেকে যায়। আর কোনও খাবার হজম না হলে কি হতে পারে তা নিশ্চয় কারও অজানা নেই।

দুধ এবং মাছ:

১. দুধ এবং মাছ একসঙ্গে খেলে শরীরে “এমা” নামে এক ধরনের ক্ষতিকর টক্সিনের পরিমাণ খুব বেড়ে যায়, ফলে শরীরের ভিতর থেকে বিকল হতে শুরু করে।

২. আয়ুর্বেদ মতে শরীরে টক্সিনের পরিমাণ বেড়ে যাওয়ার অর্থ হল বিষের পরিমাণ বেড়ে যাওয়া, যা একাধিক রোগকে ডেকে আনার পক্ষে যথেষ্ট।

৩. মাছ এবং দুধ একসঙ্গে খেলে মারাত্মক রকমের অ্যালার্জি হওয়ার আশঙ্কা বৃদ্ধি পায়।

৪. একাধিক গবেষণায় প্রমাণিত হয়েছে যে মাছ এবং দুধ একসঙ্গে শরীরে প্রবেশ করলে রক্তচলাচল মারাত্মকভাবে ব্যাহত হয়। সেই সঙ্গে হার্টের স্বাস্থ্যেরও অবনতি ঘটে। তাই ভুলেই এই দুটি খাবার একসঙ্গে খাবেন না।

দুধ এবং লবনের পরিমাণ বেশি রয়েছে এমন খাবার:

১. লবন এবং দুধ একে অপরের থেকে একেবারেই আলাদা চরিত্রের খাবার, যা একসঙ্গে খেলে ক্ষতি ছাড়া আর কিছুই হয় না।

২. একাধিক খাবার দুধ এবং লবন সহযোগে বানানো হয়, যা কোনও মতেই খাওয়া উচিত নয়।

৩. দুধে উপস্থিত ক্যালসিয়াম আর লবনের উপস্থিত সোডিয়াম একসঙ্গে মিশলে শরীরের অন্দরে নানা ক্ষতিকর পরিবর্তন হতে থাকে, যা সুস্থ থাকার পক্ষে অন্তরায় হয়ে দাঁড়ায়।

নিয়মিত আপডেট পেতে লাইক দিয়ে আমাদের সাথে থাকুন